রেডজোন সিলেটে ২/১ দিনের মধ্যে লকডাউন

সিলেটে জোনভিত্তিক লকডাউন চূড়ান্ত হয়েছে। স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্টদের কাছে আজ সকালেই চিঠি প্রেরণ করা হয়েছে। জেলা কোভিড নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসক এ বিষয়ে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।

রবিবার না হলেও সোমবার থেকে সিলেটে জোনভিত্তিক লকডাউন কার্যকর হতে পারে। করোনাভাইরাসের সংক্রমণরোধে রেডজোন সিলেটে জোনভিত্তিক লকডাউন ২/১ দিনের মধ্যে কার্যকর হচ্ছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন স্বাস্থ্য বিভাগ সিলেট-এর সহকারী পরিচালক ডা: আনিসুর রহমান।

ডা: আনিসুর রহমান জানান, সিলেটের যে এলাকায় প্রতি লাখে ১০ জন লোক করোনা আক্রান্ত হয়েছেন-ওই এলাকাকে রেড জোন হিসাবে গণ্য করা হবে। সিলেট সিটি কর্পোরেশন এলাকায় রেডজোন হবে ওয়ার্ডভিত্তিক। আর উপজেলা পর্যায়ে উপজেলাভিত্তিক রেড জোন কার্যকর হবে। রেডজোনে ১৪ দিনের লক ডাউন হবে বলে জানান ডা: আনিসুর রহমান।

করোনা সংক্রমণের মাত্রা অনুযায়ী সরকার বিভিন্ন এলাকাকে রেড, ইয়োলো ও গ্রিন ভাগ করে সেখানে নানা পদক্ষেপ নিতে যাচ্ছে। রেড জোন লকডাউন করে দেয়া হবে। পদক্ষেপ থাকবে ইয়োলো ও গ্রিন জোনেও।

গত ৯ জুন থেকে পরীক্ষামূলকভাবে রাজধানীর রাজাবাজার এলাকাকে রেড জোন হিসেবে চিহ্নিত করে সেখানে লকডাউন করে দেয়া হয়েছে। রেডজোন এলাকা থেকে কেউ বের হতে পারবে না। আবার কাউকে প্রবেশ করতেও দেওয়া হবে না।’

স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম জানিয়েছেন, ত্রাণবিতরণসহ বিভিন্ন সময়ে জেলা প্রশাসকের নেতৃত্বে উপজেলা নির্বাহী অফিসার, উপজেলা চেয়ারম্যান, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান এবং সদস্যদের নিয়ে উপজেলা পর্যায়ে যে কমিটি গঠন করা হয়েছে- সেই কমিটিগুলোকে সক্রিয় করে লকডাউন এর বিধি-বিধান বাস্তবায়ন করা হবে।

জোনভিত্তিক এলাকাগুলোতে অন্যান্য জরুরি সেবা প্রদানের পাশাপাশি স্বাস্থ্য সুবিধার ওপর বিশেষ গুরুত্বারোপ করেন মন্ত্রী। তিনি বলেন, এসব এলাকায় গুরুতর অসুস্থ রোগীদের দ্রুত হাসপাতালে নেয়ার জন্য অ্যাম্বুলেন্স সেল করে তাৎক্ষণিক সেবা দেয়ার জন্য প্রস্তুত রাখা হবে।

সুত্র: ডেইলি সিলেট

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.