উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কানাডাস্থ বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতির বেড প্রদান

মোট পড়া হয়েছে 80 

বিয়ানীবাজারের ডাকঃ

বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতি, টরেন্ট কানাডার পক্ষ থেকে করোনা আক্রান্ত বিয়ানীবাজারবাসীর সার্বিক পরিচর্চা এবং প্রতিরোধ প্রদানের লক্ষে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আইসোলেশন সেন্টারে ১০টি বেড প্রদান ও ডেকোরেশন কাজ করে দেওয়া হয়েছে। ২৫ সেপ্টেম্বর শনিবার সকাল ১১টায় বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ৩য় তলায় অবস্থিত আইসোলেশন সেন্টোরে এ উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিএইচও ডাঃ  মোয়াজ্জেম আলী খান’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিয়ানীবাজার পৌরসভার মেয়র মোঃ আব্দুস শুকুর।

সমিতির পক্ষে স্থানীয় সমন্বয়ক রোটারিয়ান ফখরুল ইসলামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশিক নুর, সাবেক পৌর প্রশাসক তফজ্জুল হোসেন, পৌরসভার প্যানেল মেয়র-২ কাউন্সিলর নাজিম উদ্দিন, বিয়ানীবাজার উপজেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা রহুল আলম জালাল, বিয়ানীবাজার ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি আজাদুর রহমান আজাদ, হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আবু ইসহাক ও সমিতির স্থানীয় সমন্বয়ক সাবেক পৌর কমিশনার আব্দুল বাসিত।

এ সময় বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা রোগীদের চিকিৎসার জন্য সৃষ্ট আইসোলেশন সেন্টারে অত্যাধুনিক নতুন ১০টি আইসিইউ বেড প্রদান ও আইসোলেশন সেন্টার প্রশস্তকরণে দেয়ালের গ্রীলে গ্লাস ফিটিং এবং পর্দা দিয়ে ডেকোরেশন কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। পূর্বের ১০টি বেডের সাথে নতুন এই ১০টি বেড সংযুক্ত হওয়ায় এখন বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আইসোলেশন সেন্টারটি ২০ শয্যায় রুপান্তরিত হলো।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতি, টরেন্ট কানাডার নেতৃবৃন্দকে এই মহতী দানের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে তাদের ভূয়সী প্রশংসা করেন। বক্তারা বলেন, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে থাকা আমাদের প্রবাসী স্বজনরা যুগ যুগ ধরে নিজেদের পরিবার-পরিজনের পাশাপাশি বিয়ানীবাজারবাসীর আর্ত-সামাজিক উন্নয়নে গুরুত্বপুর্ণ ভূমিকা রেখে চলছেন। যেকোন দূর্যোগে, দুঃসময়ে, একক কিংবা সংগঠন ভিত্তিক সম্মেলিত ভাবে আমাদের প্রবাসীরা স্বেচ্ছায় দেশের তথা বিয়ানীবাজারের মানুষের পাশে দাড়িয়েছেন। যা অন্যান্য অঞ্চলে সচরাচর দেখা যায় না। করোনা মহামারির শুরু থেকে প্রবাসীরা বিয়ানীবাজারবাসীর পাশে থেকে সহযোগীতার হাত প্রসারিত করায় এ অঞ্চলের মানুষ কঠিন সময়েও বেশ ভালো ভাবে দিনাতিপাত করতে পেরেছে। এখন করোনা চিকিৎসার ক্ষেত্র স¤প্রসারন ও আধুনিকায়নে কানাডার টরেন্টস্থ বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতি পক্ষ থেকে আজ যে ১০টি বেড ও আইসোলেশন সেন্টারের স¤প্রসারিত অংশ ডেকোরেশন করে দিলেন তা নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয় মহতি উদ্যোগ। আমরা বিয়ানীবাজারবাসীর পক্ষ থেকে এই সমিতির সকল নেতৃবৃন্দ ও সদস্যকে আন্তরিক ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি ও তাঁদের সুস্বাস্থ্য এবং দীর্ঘায়ু কামনা করি।

উলে­খ্য, করোনা আক্রান্ত বিয়ানীবাজারবাসীর সার্বিক পরিচর্চা ও প্রতিরোধ প্রদানের লক্ষে কানাডার টরেন্টস্থ বিয়ানীবাজার সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সমিতির পক্ষ থেকে এক বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করা হয় সমিতির সভাপতি সামছুল আলম টুনু মিয়ার নেতৃত্বে। এই কাজে তাঁকে বিশেষ সহযোগীতা করেন সমিতির কোষাধ্যক্ষ শরফুল ইসলাম, নিবাহী সহসভাপতি শাকিল খান ও সদস্য মোঃ আব্দুল মুমিত। এতে সমন্বয় সাধন করেন সমিতির সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ শাহাব উদ্দিন। এছাড়া সমিতির সকল স্তরের সকল সদস্যরা এই উদ্যোগ বাস্তবায়নে অর্থ প্রদানসহ সকল বিষয়ে সার্বিক সহযোগীতা করেছেন। বিয়ানীবাজারে এই উদ্যোগ বাস্তবায়নে সমিতির পক্ষে সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করেন সাবেক শিক্ষক রোটারিয়ান ফখরুল ইসলাম ও সাবেক পৌর কমিশনার আব্দুল বাছিত।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *